• Breaking News

    ‌ধৈর্যশালী‌দের সঙ্গে র‌য়ে‌ছেন আল্লাহ...,

    সবর বা ধৈর্যধারনকা‌রী‌দের আল্লাহ পছন্দ করেন।তি‌নি তা‌দের পুরস্কৃত করার জন্য প্র‌তিশ্রু‌তিবদ্ধ।প‌বিএ কোরআন‌ে আল্লাহতায়লা ব‌লেন, হে মু‌মিনগন তোমরা ধৈর্য ও সালা‌তের মাধ্য‌মে সাহায্য কামনা কর।‌ নিশ্চয় আল্লাহ ধৈর্যশালী‌দের স‌ঙ্গে র‌য়ে‌ছেন(সুরা আল বাকার‌া: ১৫৩)আ‌রেক আয়া‌তে বলা হ‌য়ে‌ছে,সবরকারী‌দের বে‌হিসা‌ব প্র‌তিদান পূর্নরু‌পে প্রদান করা হ‌বে।(সুরা জুমার: ১০)

    Tears

    রসুল সাল্লাল্লাহু আলাই‌হি ওয়াসাল্লাম ব‌লেন যে, যে ব্যা‌ক্তি ধৈর্যধারন কর‌তে চায় আল্লাহ তালাহ তা‌কে ধৈর্যশীল ক‌রে দেয়।‌ধৈ‌র্যের চেয়ে উওম ও সুপ্রশস্ত অন্য কো‌নো দান আল্লাহ কাউ‌কে প্রদান করেননি।(বুখারী ও মুসলিম) ওমর(রা:) ব‌লেন,আ‌মি যখনই কো‌নো বিপ‌দে প‌তিত হ‌য়ে‌ছি,‌বি‌নিম‌য়ে আল্লাহ তা‌তে আমা‌কে চার প্রকার নিয়ামত দান ক‌রেছেন।
    ‌বিপদ‌টি আমার ধর্মীয় বিষ‌য়ে হয়‌নি,‌বিপদ‌টি সর্ববৃহৎ হয়‌নি ,তাতে আমি সন্তু‌ষ্টি থে‌কে ব‌নচিত হয়‌নি, তা‌তে আমি প্র‌তিদা‌নের আশা রা‌খি।

    ধৈর্যস্তর:-
     .নিম্নস্তর:-‌বিপদপাদ‌কে অপছন্দ করা স‌ত্বেও কো‌নো অভি‌যোগ না করা।
     .আ‌ত্নিক বিষ‌য়ে ধৈয্য:-অথার্ৎ স্বাভা‌বিক আর্কষনীয় বিষ‌য়ে ও প্র‌বি‌ত্তিসংক্রান্ত বিষ‌য়ে ধৈর্য ধারন। দু‌নিয়ার মানুষ যা লাভ ক‌রে তার দু‌টির যে‌কো‌নো এক‌টি।. ম‌নে যা চায় তা লাভ ক‌রে।তখন আবশ্যক হ‌চ্ছে শুক‌রিয়ার মাধ্য‌মে আল্লাহর হক আদায় করা এবং কো‌নো কিছুই আল্লাহর অবাধ্যতায় ব্যায় না করা। .মন যা চায় তার বিপরীত বিষয়। এটা আবার তিনভা‌গে বিভক্ত:-.আল্লাহ আনুগ্যত করার ক্ষে‌এে সবর করা । এ ক্ষে‌এে ওয়া‌জিব সবর হ‌চ্ছে ফরয কাজগুলা বাস্তবায়ন করা।এবং নফল সবর হ‌চ্ছে সুন্নাত,মুস্তাহাব ও নফল কাজ গু‌লো আদায় করা । .আল্লাহর অবাধ্য না হওয়ার ক্ষে‌এ‌ে সবর করা।এ ক্ষেএ‌ে ওয়া‌জিব হ‌চ্ছে হারাম বিষয়গু‌লো প‌রিত্যাগ করা এবং মুস্তাহাব হ‌চ্ছে মাকরুহ তথা নিন্দনীয় বিষয়গু‌লো প‌রিত্যাগ করা । .আল্লাহর নির্ধারন করা বিপদ আপদে সবর ধারন করা। এ ক্ষে‌এে ওয়া‌জিব হ‌চ্ছে  অভি‌যোগ করার ক্ষে‌এে জবান‌কে সংযত রাখা। আল্লাহর নির্ধার‌নে রাগ‌ন্বিত হওয়া বা প্রশ্ন তোলা থে‌কে অন্তর‌কে বিরত রাখা এবং আল্লাহর অসন্তষ্টকারী কাজ থে‌কে অঙ্গপ্রত‌ঙ্গকে সংযত রাখা। যেমন গালাগা‌লি-রাগারা‌গি না করা এবং বিলাপ ক‌রে ক্রুন্দন ,কাপড় বা চুল ছেড়া,‌নি‌জের শরীর‌কে আঘাত করা প্রভৃ‌তি কাজ থে‌কে বিরত থাকা। আর মুস্তাহাব হ‌চ্ছে আল্লাহ যা নির্ধারন ক‌রে‌ছেন তা‌তে অন্ত‌রে সন্তু‌ষ্টি পোষন করা।
     এরকম আরো পোষ্ট পেতে আমাদের সাথেই থাকুন

    No comments